শনিবার, ৫ই ডিসেম্বর, ২০২০ ইং, ২০শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
শনিবার, ৫ই ডিসেম্বর, ২০২০ ইং, ২০শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
শনিবার, ৫ই ডিসেম্বর, ২০২০ ইং

করোনা থেকে সুস্থ হয়ে আবারো মানব সেবায় করোনা প্রতিরোধে যুদ্ধে নেমেছেন ডাঃ নাজিয়া

করোনা থেকে সুস্থ হয়ে আবারো মানব সেবায় করোনা প্রতিরোধে যুদ্ধে নেমেছেন ডাঃ নাজিয়া

মোহাম্মদ জামাল মল্লিক,শরীয়তপুর।।

শরীয়তপুরে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগী ও জেলার মানুষকে চিকিৎসা সেবা দিতে গিয়ে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়ে নিয়ম মেনে মনোবল নিয়ে যুদ্ধ করে জয়ী হয়ে আবারও করোনা প্রতিরোধে যুদ্ধে নেমেছেন জেলা সিভিল সার্জেন অফিসের মেডিকেল অফিসার ডাঃ সৈয়দা শাহিনুর নাজিয়া।
১০ জুন সৈয়দা শাহিনুর নাজিয়া করোনা পজেটিভ হলে ১৪ দিন নিজ বাসায় আইসোলেশনে থাকার পর দুই বার নমুনা পরীক্ষায় ফলাফল নেগেটিভ আসলে ২৫ জুন থেকে উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাঃ আব্দুস সোবহান, ডাঃ সৈয়দা শাহিনুর নাজিয়াকে করোনামুক্ত ঘোষণা করেন। করোনা মুক্ত ঘোষণার দুইদিন পরে ২৮ জুন থেকে আবারো মানব সেবায় করোনা প্রতিরোধে যুদ্ধে নামেন ডাঃ সৈয়দা শাহিনুর নাজিয়া।

সদর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাঃ আব্দুস সোবহান সিভিল সার্জেন অফিসের মেডিকেল অফিসার ডাঃ সৈয়দা শাহিনুর নাজিয়ার সুস্থতার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ডাঃ নাজিয়া সুস্থ হওয়ার পরেই তার নিজ কর্মস্থলে যোগদান করছেন এবং মানুষের সেবায় কাজ করেছে। আমরা চিকিৎসকরা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে এই মহামারী করোনার মধ্যেও দেশের জন্য কাজ করে যাচ্ছি। যেকোনো দুর্যোগে দেশের জন্য কাজ করা আমাদের নৈতিক দায়িত্ব।

ডাঃ সৈয়দা শাহিনুর নাজিয়া জানান, দেশের এমন সময়ে চিকিৎসকদের দায়িত্বের বাইরে থাকার সুযোগ নেই। দেশের এই ক্লান্তিলগ্নে মানুষের সেবা দিতে গিয়ে আমিও করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলাম। আল্লাহর রহমতে আমি এখন সম্পুর্ন সুস্থ। পেশায় আমিতো একজন চিকিৎসক। দেশের এই সংকটকালে আমি কিভাবে ঘরে বসে থাকি। চিকিৎসক হিসেবে আমাকেতো এই যুদ্ধে থাকতেই হবে । এই যুদ্ধে কোনো রোগী মারা গেলে চিকিৎসকের পরাজয়। এমন সংকট থেকে পালিয়ে থাকলেও পরাজয়। পালিয়ে আমাদের বাঁচার চেষ্টা থাকলে সাধারণ রোগীরা যাবেন কোথায়? তাদের সেবায় অন্তত শপথের দায়বদ্ধতা থেকে দায়িত্ব পালন করা চিকিৎসকদের নৈতিক দায়িত্ব।

মন্তব্য করুন

মন্তব্য