বৃহস্পতিবার, ৩রা ডিসেম্বর, ২০২০ ইং, ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
বৃহস্পতিবার, ৩রা ডিসেম্বর, ২০২০ ইং, ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
বৃহস্পতিবার, ৩রা ডিসেম্বর, ২০২০ ইং

নড়িয়ার চামটা ইউনিয়নে গরীব অসহায়দের পাশে বাংলাদেশ আমেরিকান সোসাইটি( BAS)

নড়িয়ার চামটা ইউনিয়নে গরীব অসহায়দের পাশে বাংলাদেশ আমেরিকান সোসাইটি( BAS)

শরীয়তপুরের নড়িয়ার চামটা ইউনিয়নে কোভিট- ১৯ ও বন্যা দূর্গত ২০০ অসহায় ও দুঃস্থ পরিবারের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেছেন বাংলাদেশ আমেরিকান সোসাইটি (BAS)। রবিবার সকাল ১১ টায় চামটা ইউনিয়ন পরিষদের মাঠে এ ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন,শহিদ স্মৃতি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক কবি মৃধা এ আজম।বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন,চামটা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ নিজাম উদ্দিন রাড়ি,কোর্ডিনেটর এডভাইজারী কাউন্সিল মেম্বার অব্ বিএএস ইলিয়াস এম শিকদার,কো-অর্ডিনেটর সাধারন সম্পাদক পুরান দিনারা হাট বণিক সমিতি মোঃ শওকত শিকদার সহ অন্যান্যরা।এ সময় তারা বলেন,করোনা ভাইরাস এবং বন্যায় চামটা ইউনিয়নে যারা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন আমরা আপাতত দুইশত পরিবার কে সহযোগিতা করছি।ইনশাআল্লাহ আমরা চেষ্টা করবো একে একে অসহায় দুঃস্থ পরিবারের পাশে সব সময় আর্থিক সহযোগিতা নিয়ে পাশে থাকার জন্য।এ সময় চামটা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ নিজাম উদ্দিন রাড়ি বলেন,চামটা ইউনিয়নে এ দূর্যোগের সময় বাংলাদেশ আমেরিকান সোসাইটি গরীব অসহায় মানুষের পাশে এসে দাড়ানোর জন্য তাদের অসংখ্য ধন্যবাদ জানাচ্ছি,এবং পাশাপাশি আমি বলবো আপনারা তাদের জন্য দোয়া করবেন।তারা যেনো এভাবেই গরীব অসহায় মানুষের পাশে সব সময় সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিতে পারেন।এতে প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন,এ করোনা ভাইরাস এবং বন্যায় আমরা আর্থিক ভাবে অনেক পিছিয়ে পড়েছি, এতে বেশি সমস্যায় রয়েছে এবং ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে খেটে খাওয়া পরিবার গুলো।যারা দিন এনে দিন খায় তাদের কস্টের শেষ নেই।এ সময় বাংলাদেশ আমেরিকান সোসাইটি চামটা ইউনিয়ন পরিষদের গরীব অসহায় মানুষের পাশে এসে দাড়ানোর জন্য তাদের অসংখ্য ধন্যবাদ এবং তাদের প্রতি আমার পক্ষ থেকে দোয়া এবং ভালোবাসা রইলো।এবং আমি আশা করবো তারা এভাবেই গরীব অসহায় মানুষের পাশে সব সময় সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেবেন।ত্রাণ সামগ্রী পেয়ে দরিদ্র পরিবার গুলোর মুখে হাসি ফুটেছ, এবং মনে তৃপ্তি নিয়ে তারা বলেন,দোয়া করি আল্লাহ তাদের বাচিয়ে রাখুক,আমরা অনেক কস্টে আছি পানির মধ্যে,কাজ কাম করতে পারি না,সাহায্য পাওয়াতে অনেক উপকার হইছে আমাদের।

মন্তব্য করুন

মন্তব্য